কিস্তির টাকা দিতে না পেরে গায়ে আগুন দিয়ে গৃহবধূর আত্মহত্যা

গাজীপুর সদর উপজেলার পাইনশাইল এলাকায় কিস্তির টাকা পরিশোধ করতে না পেরে ক্ষোভে নিজের গায়ে কেরোসিন ঢেলে আগুন জ্বালিয়ে মাসুদা খাতুন (২৮) নামে এক গৃহবধূ আত্মহত্যা করেছেন। এ ঘটনায় নিহতের বড় ভাই বাদী হয়ে জয়দেবপুর থানায় নিহতের স্বামী ও দেবরের নাম উল্লেখ করে শুক্রবার একটি মামলা করেন।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, নিহতের স্বামী হাফিজুর রহমান ও দেবর বাবুল হোসেনকে বিভিন্ন এনজিও থেকে টাকা তুলে দেয় মাসুদা। সময়মতো তারা কিস্তির টাকা পরিশোধ করতে না পারায় স্বামী ও দেবরের সঙ্গে পারিবারিক দ্বন্দ্ব শুরু হয়।

এরই জের ধরে বৃহস্পতিবার সকাল ৯টার দিকে মনের দুঃখ সইতে না পেরে কাউকে কিছু না বলে নিজ বাড়ির উঠানে গিয়ে গায়ে কেরোসিন ঢেলে আগুন লাগিয়ে দেয়। এ সময় আশপাশের লোকজন এসে তাৎক্ষণিক আগুন নিভিয়ে চিকিৎসার জন্য গাজীপুর সদর হাসপাতাল নিয়ে যায়।

পরে কর্তব্যরত চিকিৎসক প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিকেলের বার্ন ইউনিটে রেফার্ড করেন। এ সময় ঢাকা নেওয়ার পথে তার মৃত্যু হয়। এ ঘটনায় বড় ভাই সালাম বাদী হয়ে জয়দেবপুর থানায় একটি মামলা করেন। আসামিরা হলো- নিহতের স্বামী হাফিজুর রহমান এবং জামালপুর জেলার মাদারগঞ্জ থানার বাগলেরগড় গ্রামের হাবিবুর রহমানের ছেলে বাবুল হোসেন।

জয়দেবপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) নাসির উদ্দিন জানান, এ ঘটনায় নিহত মাসুদা খাতুনের বড় ভাই বাদী হয়ে একটি মামলা করেন। আসামি দুজনই বর্তমানে পলাতক রয়েছে। তাদের ধরার জন্য অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

Advertisements